Thursday, May 30, 2024

ছাত্রীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে শিক্ষক আটক

- Advertisement -

রাতদিন ডেস্কঃ সাতক্ষীরা তালতলা আদর্শ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সহকারি ইংরেজি শিক্ষক এস.এম মোর্তেজা আলম লিটন বিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে আটক করেছে পুলিশ।

বুধবার তাকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। এরআগে ২৩মে মঙ্গলবার গভীর রাতে তাকে আটক করে সদর থানা পুলিশ।

আটককৃত শিক্ষক এস.এম মোর্তেজা আলম লিটন সাতক্ষীরা সদর থানার মাগুরা কর্মকার পাড়া গ্রামের মৃত. মুনসুর আলী সানার ছেলে।

নির্যাতিতা ওই স্কুল ছাত্রী জানায়, গত দুই মাস ধরে বিকেল ৫টা থেকে ইংরেজি বিষয়ে প্রাইভেট পড়তে যায় শিক্ষক মোর্তেজা লিটনের বাড়িতে। প্রতিদিনের মত গত সোমবার বিকেল ৫টার সময় শিক্ষকের বাসায় ১২-১৩ জন সহপাঠি প্রাইভেট পড়তে যায়। প্রাইভেট পড়ানোর শেষ পর্যায়ে ওই শিক্ষক বিভিন্ন অজুহাতে কৌশলে তার খাতা দেখতে এক ঘন্টার বেশি সময় নেন। ততসময়ে তার অন্যান্য সহপাঠিরা চলে যায়। এক পর্যায়ে শিক্ষক তার কক্ষের সোফা থেকে উঠে তার সাথে অসৎ উদ্দেশ্যে তাকে জোরপূর্বক জাপটিয়ে ধরে যৌন নিপীড়নের চেষ্টা করে। এতে সে বাধা দিয়ে চিৎকার করার চেষ্টা করলে তিনি তার মুখ চেপে ধরেন এবং বিভিন্ন ধরনের ভয়ভীতি দেখান। এক পর্যায়ে সে নিজের চেষ্টায় শিক্ষককে ধাক্কা দিয়ে দ্রুত বাড়িতে চলে আসে। কান্নাকাটির এক পর্যায়ে স্কুল ছাত্রী বিষয়টি তার মাকে জানায়। পরদিন পরিবারের পক্ষ থেকে লিখিতভাবে সাতক্ষীরা সদর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

এ ব্যাপারে তালতলা আদর্শ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রেজাউল করিম জানান, এ ঘটনা জানার পর ইতিমধ্যে ম্যানেজিং কমিটির মিটিং ডাকা হয়েছে। মিটিংয়ের সিদ্ধান্ত অনুসারে প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

সাতক্ষীরা সদর থানা পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) নজরুল ইসলাম জানান, যৌন নিপীড়নের অভিযোগে সাতক্ষীরা সদর উপজেলার তালতলা আদর্শ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ইংরেজি শিক্ষক মোর্তজা আলম লিটনকে আটক করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। আটককৃত শিক্ষককে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

এমএইচ-০৬

- Advertisement -

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত