Monday, December 5, 2022

পাইকগাছায় একের পর এক সন্ত্রাসী হামলার শিকার হচ্ছে ইউপি সদস্যরা

কপিলমুনি (খুলনা) প্রতিনিধিঃ পাইকগাছায় সন্ত্রাসী মাদক ব্যবসায়ীদের হামলায় একের পর এক  রক্তাক্ত জখম ও লাঞ্চিত হচ্ছে এক ইউপি সদস্য  । ১৮ নভেম্বর  সন্ত্রাসী হামলায় ইউপি সদস্য ও  খুলনা হাজী মহসিন কলেজের সাবেক ছাত্রনেতা কাইয়ুম হোসেন নান্নু রক্তাক্ত জখম হয়েছেন। এ ঘটনায় ইউপি সদস্য কাইয়ুম বাদী হয়ে চিহ্নিত সন্ত্রাসী ও মাদক ব্যবসায়ী মো. হাবিবুর রহমান (৩৫) সহ সাতজনের বিরুদ্ধে  থানায় মামলা হয়েছে । আটক হয়েছে শুকুর আলী সরদার। কিন্তু জামিনে বের হয়ে ফের বাদী পরিবারকে হুমকি ধামকি দিচ্ছে।  এরআগে গত ১৫ নভেম্বর ১, ২ ও ৩নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা ইউপি সদস্য জুলেখা খাতুন কে ঐ চিহ্নিত সন্ত্রাসীরা অতর্কিত হামলা ও লাঞ্ছিত করে। এ ঘটনায় ঐদিন ইউপি সদস্য থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

- Advertisement -

মামলা সূতে জানাযায়, শুক্রবার বেলা ১১ টার দিকে চাঁদখালী বাজারের স্টলে বসে চা পান করা অবস্থায় ইউপি সদস্য কাইয়ুমকে মাথা-মুখে কিল ঘুষি মেরে ফেলে দিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। এ সময় ইউপি সদস্যের তার ৩ ও ৫ বছর বয়সের দু’শিশু সন্তান সাথে ছিলো। ইউপি সদস্য ও শিশুদের চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে এসে রক্তাক্ত জখমী অবস্থায় তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠায়।

ইউপি সদস্য জুলেখা খাতুন, রূপা ও অনিসুর রহমান সানা বলেন, আমরা নিরাপত্তা হীনতা বোধ করছি। পরিষদে যেতে ভয় পাচ্ছি।

নাম না প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় কয়েকজন জানান, ইউপি চেয়ারম্যান শাহাজাদা মো. আবু ইলিয়াসের ছত্রছায়ায় থাকা এ সব সন্ত্রাসীরা এলাকায় তান্ডব চালিয়ে সন্ত্রাসী ইউনিয়ন করতে চাইছে। একের পর এক ইউপি সদস্যদের মারপিট ও লাঞ্ছিতের ঘটনায় ইউপি সদস্যবৃন্দ সংশ্লিষ্ট প্রশাসের কাছে প্রতিকার দাবি করেছেন।

প্যানেল চেয়ারম্যান মো. আব্দুল্লাহ সরদার ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ইউপি সদস্য কে মারপিটের ঘটনা খুবই দুঃখ জনক। আমি এ জঘন্য ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। এ সময় তিনি আরো অভিযোগ করেন ইতোপূর্বে প্যানেল চেয়ারম্যান ফাতিমা তুজ জোহরা রূপাও লাঞ্ছিত হয়।

ইউপি চেয়ারম্যান শাহাজাদা মো. ইলিয়াস মুঠফোনে বলেন, সহকর্মীদের মারপিট ও লাঞ্চিতের ঘটনা খুবই দুঃখ জনক। তিনি দোষীদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবী করে বলেন, কোন অন্যায়কে প্রশ্রয় দেওয়া হবে না।

থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. জিয়াউর রহমান জিয়া জানান, আসামীদের গ্রেফতারের জোর চেষ্টা চলছে।

- Advertisement -

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ